সংস্কৃত প্রত্যয়

ব্যাকরণে সংস্কৃত প্রত্যয় কাকে বলে, প্রত্যয়ের শ্রেণীবিভাগ, কৃৎ প্রত্যয় ও তদ্ধিত প্রত্যয়ের সংজ্ঞা, উদাহরণ প্রভৃতি সম্পর্কে নিম্নে বিস্তারিত আলোচনা করা হল ।

সংস্কৃত প্রত্যয়

ব্যাকরণের এই অংশের উপর ভালোভাবে দখল থাকলে শিক্ষার্থীদের সংস্কৃত ভাষা আরোও শক্তিশালী হয়ে উঠবে।

তাই শুধুমাত্র পরীক্ষার্থীদের জন্যই নয়, সকল শ্রেণীর সংস্কৃত শিক্ষার্থীদের জন্য আমাদের এই প্রয়াস – সংস্কৃত প্রত্যয় শিক্ষা ।

সংস্কৃত প্রত্যয়ের সংজ্ঞাঃ-

শব্দ ও ধাতু প্রকৃতির পর যে বর্ণ বা বর্ণ সমষ্টি যোগে নতুন শব্দ, ধাতু বা ধাত্ববয়ব (ধাতুর অবয়ব) তৈরী হয়, সেই বর্ণ বা বর্ণ সমষ্টিকে প্রত্যয় বলে ।

প্রত্যয় হল নতুন নতুন ধাতু ও শব্দ গঠনের বিজ্ঞান সম্মত কৌশল ।

সংস্কৃত প্রত্যয়ের প্রকারভেদঃ-

প্রত্যয় প্রধানত দুই প্রকার । যথা ১.কৃৎ প্রত্যয় ও ২.তদ্ধিত প্রত্যয় ।

১.সংস্কৃত কৃৎ প্রত্যয়ের সংজ্ঞাঃ-

ধাতুর পরে যেসব প্রত্যয় যুক্ত হয়ে নতুন ধাতু বা শব্দ গঠিত হয় তাদের কৃৎ প্রত্যয় বলে ।

সংস্কৃত কৃৎ প্রত্যয়ের উদাহরণঃ-

কৃৎ প্রত্যয়গুলি হল – ক্ত, ক্তবতু, ক্ত্বাচ্, ল্যপ্, তুমুন্, শতৃ, শানচ্, তব্য, অনীয়, যৎ, ণ্যৎ, ক্যপ্, ণ্বুল্, তৃচ্, ক্তিন্, ল্যুট্, যঞ্ প্রভৃতি ।

কৃৎ প্রত্যয়ের সাধারণ নিয়মঃ-

১. কৃৎ প্রত্যয় হলে ধাতুর অন্ত্যস্বরের ও উপধা লঘুস্বরের গুণ হয় কিন্তু ক্, গ্ অথবা ঙ্ ইৎ হলে হয় না ।

২. কৃৎ প্রত্যয়ের ণ্ অথবা ঞ্ ইৎ হলে, অন্ত্যস্বরের ও উপধা অ-কারের ব্যৃদ্ধি হয় ।

এবং আ-কারান্ত ধাতুর উত্তর য্ এর আগম হয় ।

৩. কৃৎ প্রত্যয় পরে থাকলে ণিচ্ এর লোপ হয় ।

৪. কৃৎ প্রত্যয়ের ঘ ইৎ হলে ও ণ্যৎ প্রত্যয় যোগে, ক্ত প্রত্যয় যোগে, যে সব ধাতুর ইট্ হয় না, তাদের অন্তস্থিত চ্ স্থানে ক্ ও জ্ স্থানে গ্ হয় ।

৫. কৃৎ প্রত্যয়ের খ ইৎ হলে, পূর্বপদ দ্বিতীয়ার এক বচন হয় ।

৬. কৃৎ প্রত্যয়ের প্ ইৎ হলে হ্রস্ব স্বরান্ত ধাতুর উত্তর ৎ হয় ।

৭. কৃৎ প্রত্যয়ের বা তদ্ধিত প্রত্যয়ের য্ পরে থাকলে, ধাতুর বা শব্দের অন্তস্থিত ও স্থানে অব্ এবং ঔ স্থানে আব্ হয় ।

৮. ক ইৎ অ-কারাদি প্রত্যয় পরেথাকলে হন্ স্থানে ঘ্ন হয় ।

২. সংস্কৃত তদ্ধিত প্রত্যয়ের সংজ্ঞাঃ-

শব্দের পরে তে সকল প্রত্যয় যুক্ত হয়ে নতুন শব্দ গঠিত হয় তাদের তদ্ধিত প্রত্যয় বলে ।

তদ্ধিত প্রত্যয়ের উদাহরণঃ-

তদ্ধিত প্রত্যয়গুলি হল – অণ্, ঠক্, ঢক্, ইঞ্, অঞ্, ইমনিচ্, মতুপ্, ফক্, ছ, ত্ব, তল্, ঈয়সুন্, ইষ্ঠন্, তরপ্, তমপ্ প্রভৃতি ।

Leave a Comment